Sunday , 20 May 2018

বাথরুমে শুয়ে আছে চিতা, বাড়ির মালিকের চক্ষু চড়কগাছ!

ভারতের মহারাষ্ট্রের নাগপুরে এমন ঘটনা ঘটেছে যা হয়তো কেউ কল্পনাও করতে পারে না। বাথরুমে গিয়ে চিতাবাঘ শুয়ে থাকতে দেখা গেছে সেখানে।













জানা গেছে, চিতাটি ওই বাড়ির পাশ দিয়ে অনেকক্ষণ ধরেই ঘোরাফেরা করছিল। হঠাৎ করেই সেই চিতা বাঘ এক বাড়ির শৌচালয়ে ঢুকে পড়ে।

চিতাটি যখন বাড়িটিতে ঢোকে তখন ওই পরিবারের সবাই ঘুমিয়ে ছিলেন। সে কারণে তারা টেরই পাননি যে বাড়ির শৌচালয়ে ঘাঁটি গেড়েছে চিতা!

কিন্তু এক প্রতিবেশী ওই বাড়ির মালিককে জানান যে, একটি চিতা তাদের বাড়িতে আস্তানা গেড়েছে। বাইরে থেকে এক ছাত্র চিতাটিকে ওই বাড়িতে ঢুকতে দেখে সেই প্রতিবেশীকে খবর দেয়।













বাড়ির মালিক এই খবর পাওয়ার পরে প্রথমটায় বিশ্বাস করেননি। কিন্তু শৌচালয়ে গিয়ে দেখতেই আঁতকে ওঠেন। দেখেন, আরামে বসে আছে চিতাটি। সঙ্গে সঙ্গে বাইরে থেকে শক্ত করে দরজা বন্ধ করে দেন তিনি।

চিতাটির খবর ছড়িয়ে পড়তেই ওই বাড়িতে এসে এলাকার মানুষ ভিড় জমায়। বনকর্মীদের খবর দেওয়া হয়। বনকর্মীরা এসে ইনজেকশন দিয়ে চিতাটিকে শান্ত করেন। মোট নয় ঘণ্টা সময় লাগে তাকে উদ্ধার করতে।