আশুলিয়ায় ডায়াগনস্টিক সেন্টারের ভেতরে মিলল কর্মচারীসহ দু’জনের লাশ !

আশুলিয়ার জিরানী এলাকার হাজী আনোয়ার মডার্ন ডায়াগনস্টিক অ্যান্ড ডক্টর চেম্বারের ভেতর থেকে এক কর্মচারীসহ দু’জনের লাশ উদ্ধার করেছে পুলিশ। ভেতরে থেকে মঙ্গলবার (১৭ এপ্রিল) সকাল দশটার দিকে নিহতদের মরদেহ উদ্ধার করা হয়।
figure>






<

ভিডিওটি দেখতে এখানে ক্লিক করুন

ভিডিওটি দেখতে এখানে ক্লিক করুন

figure>






নিহতরা হলেন- ময়মনসিংহ মুক্তাগাছার আলী হোসেনের ছেলে ফরহাদ হোসেন (২৪)। তিনি ওই ডায়াগনস্টিক সেন্টারের ল্যাব টেকনোলজিস্ট। অন্যজন নওগাঁ জেলার আতরাই থানার আবদুল কুদ্দুসের ছেলে নাবিনুর রহমান। তারা দুজন ওই ডায়াগনস্টিক সেন্টারে প্রতিদিন ঘুমাতেন।
figure>






পুলিশ ও স্থানীয়রা জানায়, আশুলিয়ার জিরানী এলাকার হাজী আনোয়ার মডার্ন ডায়াগনস্টিক অ্যান্ড ডক্টর চেম্বারে প্রতিদিনের মতো সোমবার রাতেও ল্যাবরেটরির কর্মচারী ফরহাদকে রেখে সবাই চলে যান। পরে রাত দশটার দিকে ফরহাদ তার স্থানীয় এক বন্ধুকে হাসপাতালের ভেতরে ডেকে নিয়ে এসে মূল ফটক বন্ধ করে দেন।
figure>






আজ সকালে ফরহাদের বাড়ি ফিরতে দেরি হওয়ায় ছোট ভাই শরিফ আটটার দিকে তাকে ডাকতে আসেন। তিনি অনেক ডাকাডাকির পরও কোন সাড়া শব্দ না পেয়ে হাসপাতাল কর্তৃপক্ষকে খবর দেন। পরে কর্তৃপক্ষের লোকজন হাসপাতালের ভেতরে এসে নিহতদের মরদেহ পড়ে থাকতে দেখে। খবর পেয়ে আশুলিয়া থানা পুলিশ ঘটনাস্থলে পৌঁছে মরদেহ উদ্ধার করে থানায় নিয়ে আসে।
figure>






ভিডিওটি দেখতে এখানে ক্লিক করুন

ভিডিওটি দেখতে এখানে ক্লিক করুন

figure>






আশুলিয়া থানার এসআই কামরুল হোসেন জানান, ঘটনাস্থলে মদের বোতল ও কিছু শুকনা খাবার পাওয়া গেছে। এতে ধারণা করা হচ্ছে, অতিরিক্ত মদপান করায় তাদের মৃত্যু হয়ে থাকতে পারে। লাশ উদ্ধার করে থানায় নেয়া হয়েছে। পরে ময়নাতদন্তের জন্য ঢাকা মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে নেয়া হবে। রিপোর্ট হাতে পেলেই মৃত্যুর সঠিক কারণ জানা যাবে বলে জানান তিনি।
figure>